মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

ব্যবসা বাণিজ্য

ব্যবসা বাণিজ্য

ঢাকা বিভাগ আদিকাল থেকেই একটি গুরুত্বপূর্ণ ব্যবসা বাণিজ্যের এলাকা ছিল। প্রাথমিক পর্যায়ে এই জেলার উৎপন্ন কৃষি দ্রব্যই ব্যবসা-বাণিজ্যের প্রধান উপাদান ছিল। এই কৃষি পণ্যের মধ্যে অতীত কালের ধান, সরিষা, ডাল, ইক্ষু ইত্যাদি থেকে শুরু করে উনবিংশ শতাব্দীর নীল এবং পাট ঢাকা বিভাগকে একটি অতি সমৃদ্ধশালী অঞ্চলে রূপান্তরিত করে। বস্তুত এ ধারা বর্তমানেও বিদ্যমান এবং এ কৃষি পণ্যের সাথে নতুন কিছু যেমন- আলু ও বিভিন্ন ধরনের শাক-সবজ্বী সংযোজিত হয়। কৃষি পণ্য ছাড়াও প্রাচীনকাল থেকেই ঢাকা বিভাগের অধিবাসীরা কৃষি ও শিল্পের মাধ্যমে বিভিন্ন ধরণের সামগ্রী উৎপন্ন করত যা দেশ এবং বিদেশে বিক্রয় করা হতো। উৎপন্ন বিভিন্ন সামগ্রীর মাধ্যমে ঢাকার শিল্পীরা পৃথিবী বিখ্যাত হয়ে উঠে। এক সময় পৃথিবীর ধনাঢ্য ও পরাক্রমশালী রাজা বাদশারা ব্যবহার যা করত তা ছিল ঢাকাই মসলিন। এমন  এক সময় ছিল যখন মসলিন মানেই ছিল ঢাকা। ঢাকার ব্যবসা বাণিজ্য অতীতে অধিবাসীদের বিশেষ শ্রেণীর মানুষেরাই পরিচালনা করত। আর এ ব্যবসা বাণিজ্য চলতো হাট ও বাজারকে কেন্দ্র করে। পরবর্তীতে ঢাকা নগরীর উত্থান ও রাজধানীতে রূপান্তরিত হওয়ার সাথে সাথে এটি ঢাকা তথা পূর্ব বাংলার ব্যবসা বাণিজ্যেরও কেন্দ্র হয়ে উঠে। আর এখানেই পৃথিবীর বিভিন্ন স্থান থেকে আন্তর্জাতিক ব্যবসায়ীরা যেমন- ইরান, তুরস্ক, আরব, নেদারল্যান্ড, ডেনমার্ক, ফ্রান্স ও ইংল্যান্ড থেকে আসতেন। বর্তমানে ঢাকা জেলার ব্যবসা বানিজ্য আরও বহুমূখী হয়ে উঠেছে এবং কৃষিপণ্যের সাথে নানাবিধ শিল্প সামগ্রি সংযোজিত হয়েছে।

 

https://www.google.com.bd/?gws_rd=cr,ssl&ei=eyPHVcu4NYeNuASXvoCoDQ#q=%E0%A6%AC%E0%A7%8D%E0%A6%AF%E0%A6%AC%E0%A6%B8%E0%A6%BE+%E0%A6%AC%E0%A6%BE%E0%A6%A3%E0%A6%BF%E0%A6%9C%E0%A7%8D%E0%A6%AF